Welcome to প্রাইম রেসিডেন্সিয়াল স্কুল

শতভাগ প্রত্যাশা পূরণে আমরা অঙ্গীকার বদ্ধ

পরিচালনা পর্ষদের বাণী

সত্য ও সুন্দরের প্রতি মানুষের আকঙ্খা চিরন্তন।যা মানুষ ভাবে,বিশ্বাস করে এবং বাস্তবায়ন করতে চায় এর জন্য প্রয়োজন অনুকূল পরিবেশ।আমাদের এ অঞ্চলের শিক্ষার ক্ষেত্রে রয়েছে নানাবিধ প্রতিকুলতা।যার ফলে অভিভাবকগন তাদের সন্তানদের লেখাপড়ার সুষ্ঠ ও মনোরম পরিবেশ এবং নিরাপত্তা সম্পর্কে উদ্বিগ্ন থাকেন।শিক্ষার ক্ষেরে এ সমস্যাগুলোর কথা বিবেচনা করে অভিভাবকদের শতভাগ প্রত্যাশা পূরনের অঙ্গীকার নিয়ে আধুনিক শিক্ষার সঙ্গে ইসলামের নৈতিক আদর্শকে গুরুত্ব দিয়ে প্রাইম রেসিডেন্সিয়াল স্কুল যাত্রা শুরু করেছে । 

প্রাইম রেসিডেন্সিয়াল স্কুল শুধু মুখস্ত কিংবা ফলাফল নির্ভর শিক্ষায় বিশ্বাসী নই । আমাদের দক্ষতা,প্রচেষ্টা ও কৌশল ছাত্র-ছাত্রীদের মেধা ও সৃজনশীলতার সমন্বয় ঘটিত Self Learning Program এর মাধ্যমে তাদের যুগোপযোগী এবং একবিংশ শতাব্দীর চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় যোগ্য সন্তান হিসাবে তৈরি করাই আমাদের মূল আভিপ্রায়।  স্কুলটি বাংলা মাধ্যম হলেও বাংলা ও ইংরেজীর দু’টি ভাষার মাধ্যমে গুরুত্ব দিয়ে কম্পিউটার ও তথ্য প্রযুক্তি নির্ভর শিক্ষার্থী প্রস্তুত করা হয়।এছাড়াও প্রথম শ্রেণী থেকেই শুদ্ধ উচ্চারণসহ পবিত্র কোরআন ও হাদিসের ধর্মীয় জ্ঞান সমৃদ্ধ বিষয়ে আলোকিত করা হবে।হিন্দু ধর্মসহ অন্যান্য দর্মের অভিভাবকদের  সন্তানদের শিক্ষার্থীদেরকেও ধর্মীয় শিক্ষার প্রতি বিশেষ গুরুত্ব দেয়া হবে।আমদের দৃঢ় বিশ্বাস এ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষা পদ্ধতি,পরীক্ষার ফলাফল,গুনগত মান,আবাসিক ব্যবস্থা,অভিজ্ঞ শিক্ষকমন্ডলী দ্বারা পাঠদান পদ্ধতি আপনাকে মুগ্ধ করবেই।আপনার সার্বিক পরামর্শ ও সহযোগিতা কমনা করছি

মহান সৃষ্টিকর্তা আল্লাহ তা’আলা আমাদের এই অগ্রযাত্রাকে কবুল করুন (আমিন)

Why Choose to প্রাইম রেসিডেন্সিয়াল স্কুল ?

স্কুলের বৈশিষ্ট্য সমূহ:

  • নিয়মিত ক্লাস টেষ্ট, সাপ্তাহিক,মাসিক মূল্যায়নের ব্যবস্থা।
  • তিন সেমিস্টার পরীক্ষার মাধ্যমে শিক্ষার্থিদের চূড়ান্তভাবে মূল্যায়নের ব্যবস্থা।
  • সহ পাঠ্যক্রম (যেমন হাতের লেখা প্রতিযোগিতা,ক্রীড়া,সাহিত্য,সংস্কৃতি বিতর্ক,শরীর চর্চা,ধর্ম চর্চা,শিক্ষা সফরসহ বিনোদনের ব্যবস্থা)।
  • উন্নত চরিত্র গঠন ও ধর্মীয় মূল্যবোধ সৃষ্টি করা।
  • আবাসিক শিক্ষার্থীদের সন্ধ্যা থেকে রাত ৯.০০টা পর্যন্ত শিক্ষাকদের তত্ত্বাবধানে পাঠ তৈরি করা।
  • বিষয়ভিত্তিক শিক্ষকমন্ডলীর তত্ত্বাবধানে পরিচালিত পাঠ তৈরি করা।
  • একবিংশ শতাব্দীর চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় কম্পিউটার ও তথ্য প্রযুক্তিগত শিক্ষার ব্যবস্থা করা।
  • অভিভাবকদের সাথে নিয়মিত মতবিনিময় করা।
  • প্রথম শ্রেণী থেকে পঞ্চম শ্রেণী পর্যন্ত স্কুল শেষে হোম ওয়ার্কের কাজ সম্পন্ন করার মাধ্যমে অভিভাবকদের দুশ্চিন্তামুক্ত করা।
  • ছাত্র-ছাত্রীদের অন্যত্রে প্রাইভেট/কোচিং করার প্রয়োজন হয় না।
  • যাতায়াতের সু-ব্যবস্থা।
  • আবাসিক ছাত্র-ছাত্রীদের প্রথমিক স্বাস্থ্য চিকিৎসা স্কুল কর্তৃপক্ষ বহন করে।  

Our Teachers